৯ মার্চ, নিজস্ব প্রতিনিধিঃ রংপুরে ষষ্ঠ শ্রেণির এক ছাত্রীকে হত্যার ২২ বছর পর একজনকে মৃত্যুদণ্ডের আদেশ দিয়েছেন আদালত।

বৃহস্পতিবার রংপুর অতিরিক্ত জেলা ও দায়রা জজ আদালতের বিচারক আবু জাফর মোহাম্মদ কামরুজ্জামান এই আদেশ দেন।

আদালত সূত্রে জানা গেছে, মিঠাপুকুর উপজেলার খামার কুর্শা গ্রামের আমিন উদ্দিন ও তার ভাই সোলেমান মিয়ার সঙ্গে একই গ্রামের তফিল উদ্দিনের ছেলে সফি উদ্দিনের জমি নিয়ে বিরোধ ছিল। এর জের ধরে ১৯৯৫ সালের ৭ জুলাই সফি উদ্দিন চাকু নিয়ে সোলেমানের বাড়িতে গিয়ে তাকে খুঁজতে থাকে। এ সময় আমিন উদ্দিনের মেয়ে স্থানীয় বিদ্যালয়ের ষষ্ঠ শ্রেণির ছাত্রী আম্বিয়া খাতুন (১৩) ঘর থেকে বের হলে সফি উদ্দিন তাকে ছুরিকাঘাত করে। এতে ঘটনাস্থলেই আম্বিয়া মারা যায়। এ ঘটনার পর সফি উদ্দিন পালিয়ে যান।

পরে আম্বিয়ার চাচা সোলেমান বাদী হয়ে পাঁচজনকে আসামি করে মিঠাপুকুর থানায় হত্যা মামলা দায়ের করেন। মামলাটি তদন্ত শেষে চার আসামিকে বাদ দিয়ে সফি উদ্দিনকে অভিযুক্ত করে আদালতে চার্জশিট দাখিল করেন তৎকালীন মিঠাপুকুর থানার এসআই মফিজ উদ্দিন। সাক্ষ্য-প্রমাণ শেষে বিচারক এ রায় ঘোষণা করেন।

Share

আরও খবর