১৬ এপ্রিল, নিজস্ব প্রতিনিধিঃ বোরো মৌসুমে সরাসরি কৃষকের কাছ থেকে ৮ লাখ মেট্রিক টন ধান এবং ৭ লাখ মেট্রিক টন চাল কিনবে সরকার। এবার ধানের দাম নির্ধারণ করা হয়েছে ২৪ টাকা এবং চালের দাম ধরা হয়েছে ৩৪ টাকা।

রোববার বিকেলে সচিবালয়ে খাদ্য পরিধারণ কমিটির বৈঠক শেষে খাদ্যমন্ত্রী কামরুল ইসলাম সাংবাদিকদের এ তথ্য জানান।

খাদ্যমন্ত্রী বলেন, ‘কৃষকরা যাতে সরাসরি টাকা পায়, সেজন্য এবার আমরা কৃষককে অ্যাকাউন্ট পে চেক দেবো। এতে মাঝখান থেকে কেউ টাকা নিতে পারবে না।’

তিনি বলেন, ‘সরকার ১৫ লাখ মেট্রিক টন ধান-চাল সংগ্রহ করবে। আগামী ২ মে থেকে সংগ্রহ অভিযান শুরু হবে। শেষ হবে ৩১ আগস্ট। এবার ৭ লাখ টন ধান সরাসরি কৃষকের কাছ থেকে সংগ্রহ করা হবে।’

তিনি আরো বলেন, ‘গত বছর বোরো মৌসুমে ১৩ লাখ টন ধান-চাল সংগ্রহ করে সরকার। এর মধ্যে ৭ লাখ টন ধান ও ৬ লাখ টন চাল সংগ্রহ করা হয়। সংগ্রহ মূল্য ছিল প্রতি কেজি চাল ৩২ টাকা ও ধান ২৩ টাকা।’

এবার মোট ৮ লাখ টন বোরো চাল কেনা হবে জানিয়ে মন্ত্রী বলেন, ‘এর মধ্যে ১ লাখ টন আতপ চাল। আতপ চালের প্রতি কেজির দাম নির্ধারণ করা হয়েছে ৩৩ টাকা।’

কামরুল ইসলাম জানান, বোরো ধানের উৎপাদন খরচ ২২ টাকা ও চালের উৎপাদন খরচ ধরা হয়েছে ৩১ টাকা। সারা দেশে এবার বোরো চাল উৎপাদনের লক্ষ্যমাত্রা ১ কোটি ৯১ লাখ ৫৩ হাজার টন নির্ধারণ করা হয়েছে।

লক্ষ্যমাত্রা পূরণ করা সম্ভব কি না, জানতে চাইলে মন্ত্রী বলেন, ‘আমরা টার্গেট পূরণ করতে পারব। হাওর অঞ্চলের বোরো ফসল ক্ষতিগ্রস্ত হওয়ার পরও আশা করছি লক্ষ্যমাত্রা পূরণ হবে। হাওর এলাকায় প্রতিবছরই ক্ষতি হয়, এবার পরিমাণটা একটু বেশি। প্রায় সাড়ে ৪ লাখ টন চালের ক্ষতি হতে পারে হাওর এলাকায়। তবে অন্য জায়গায় যেভাবে বাম্পার ফলন হয়েছে, তাতে খুব অসুবিধা হবে না।’

সুনামগঞ্জের ক্ষতিগ্রস্ত কৃষকদের সহায়তা দেওয়া হচ্ছে কি না, জানতে চাইলে মন্ত্রী বলেন, ‘সুনামগঞ্জ ও নেত্রকোনার হাওরের ক্ষতিগ্রস্ত এলাকায় আমরা ওএমএসের চাল ও আটা দিচ্ছি। তাছাড়া সরকারের খাদ্যবান্ধব কর্মসূচি তো চলমান রয়েছে।’

দেশে এবার ১ লাখ টন গম সংগ্রহ করা হবে বলেও জানান কামরুল ইসলাম।

তিনি জানান, প্রতি কেজি গমের দাম নির্ধারণ করা হয়েছে ২৮ টাকা। আগামী ১৮ এপ্রিল থেকে ৩০ জুন পর্যন্ত এই গম সংগ্রহের অভিযান চলবে। গমের উৎপাদন খরচ ধরা হয়েছে ২৮ টাকা।

খাদ্যমন্ত্রীর সভাপতিত্বে সভায় অর্থমন্ত্রী আবুল মাল আবদুল মুহিত, বাণিজ্যমন্ত্রী তোফায়েল আহমেদ, কৃষিমন্ত্রী মতিয়া চৌধুরীসহ কমিটির সদস্যরা উপস্থিত ছিলেন।

Share

আরও খবর