২০ ডিসেম্বর, বিনোদন ডেস্কঃ দেশের জনপ্রিয় ব্যান্ডদল ‘মাইলস’। দলটির গায়ক, বর্তমান দলনেতা শাফিন আহমেদ। কিছুদিন আগে মাইলস নিয়ে আইনি নোটিশ প্রকাশ করেন তিনি। ‘মাইলস’ নামটি কতিপয় ব্যক্তি অনুমতিবিহীন ব্যবহার করছে বলে আইনি নোটিশে জানানো হয়।

আজ বুধবার শাফিন আহমেদ এ বিষয়ে সংবাদ সম্মেলনের আয়োজন করেন। এ সময় জানান, অর্থনৈতিক হিসাব-নিকাশ নিয়েই দলে অভ্যন্তরীন সমস্যা তৈরি হয়েছে। কিন্তু এই সমস্যা সমাধানে কোনো আগ্রহ নেই হামিন আহমেদের।

এ সময় লিখিত বক্তব্যে শাফিন আহমেদ বলেন, ‘গত ৩৬ বছর ধরে মাইলস দেশে বিদেশে নিজেদের সংগীত তুলে ধরছে। অনেক বড় বড় প্রজেক্ট মাইলস শেষ করেছে। কিন্তু এতদিন মাইলসের কোনো প্রাতিষ্ঠানিক রূপ ছিল না। আনন্দের সঙ্গে জানাচ্ছি যে, ব্যান্ড দলটি এখন বাংলাদেশের কোম্পানি আইন ১৯৯৪ মোতাবেক গঠিত একটি প্রাইভেট কোম্পানি লি.। যার নাম মাইলস ব্যান্ড লিমিটেড। মাইলস নামটি এখন মাইলস ব্যান্ড লিমিটেডের সম্পত্তি। এর ট্রেড মার্ক রেজিস্ট্রেশন করা হয়েছে। যার প্রতিষ্ঠাতা ও ব্যবস্থাপনা পরিচালক শাফিন আহমেদ।’

সংবাদ সম্মেলনে এই সংক্রান্ত কাগজপত্র উপস্থিত সাংবাদিকদের দেখান শাফিন।

তিনি আরো বলেন, ‘‘এ পর্যন্ত যে আলোচনা হয়েছে তাতে আমার সম্মানহানি ঘটেছে। কিন্তু এতদিন এ বিষয়ে মিডিয়ার সামনে বড় করে কোনো কথা বলিনি। তার মূল কারণ হচ্ছে, আমি কাউকে অসম্মান করতে চাইনি। এতে করে ভক্তরা ব্যথিত হয়েছেন, এখনো হচ্ছেন। ভুল বোঝাবুঝি হয়েছে। কিছু অসত্য তথ্য মিডিয়াতে প্রচার করা হয়েছে। সত্যটা জানানোর জন্য কথাগুলো বলছি। হামিন আহমেদকে লিখিতভাবে বলেছি, ব্যান্ডের অভ্যন্তরীণ সমস্যার সমাধান না হওয়া পর্যন্ত দলের কোনো কাজে আমি অংশগ্রহণ করব না। গত অক্টোবর মাস থেকে এ বিষয়ে একাধিকবার তাকে জানিয়ে আসছি। এরপর সেপ্টেম্বরে হামিন একটি ই-মেইলের মাধ্যমে জানান, এ বিষয়ে তার কোনো মন্তব্য নেই। এরপর আবারো উত্তর জানতে তাকে মেইল করি, সে উত্তরে লিখেন, ‘চয়েস ইজ ইউরস।’’

‘এরপর দলের অর্থনৈতিক বিষয়ে তার কাছে জানতে চাই। এছাড়াও তাকে জানাই, সঠিক উত্তর না আসা পর্যন্ত ব্যান্ডের কোনো কার্যক্রমে আমি অংশগ্রহণ করব না। পরে হামিন জানায়, সে আমার সঙ্গে মিউজিক করতে চান না। আমি তাকে বলি, তুমি আমার সঙ্গে মিউজিক করতে চাও না ঠিক আছে, তবে আমাকে ছাড়া কিছুদিন আগে শোগুলো কীভাবে করলে? তা হলে কি শাফিন আহমেদকে প্রয়োজন নেই? দলটি ভাঙা গড়ার পেছনে এই ঘটনাগুলো গুরুত্বপূর্ণ।’ বলেন শাফিন আহমেদ।

এসবের কোনো উত্তর না পেয়ে আবারো হামিন আহমেদকে চিঠি দেন শাফিন আহমেদ। চিঠিতে মাইলসের অর্থনৈতিক হিসাব-নিকাশ ও তার অংশগ্রহণ প্রসঙ্গে লিখেন।

মাইলসের এ পর্যন্ত করা গানের মধ্যে অর্ধেকের বেশি জনপ্রিয় গানের সুরকার গীতিকার শাফিন আহমেদ। এ যাবতকালের রেকর্ডকৃত জনপ্রিয় ১১টি অ্যালবামের শতাধিক গান বিভিন্ন প্রতিষ্ঠানের মাধ্যমে দেশে ও বিদেশে ডিস্ট্রিবিউশন করা হচ্ছে। যার ৬টি প্রতিষ্ঠানের সঙ্গে হামিন আহমেদের একার চুক্তি স্বাক্ষর করা হয়েছে। এখান থেকে যত সম্মানি আসে তা ব্যান্ড সদস্যদের পক্ষ থেকে হামিন আহমেদ নিয়ে থাকেন। কিন্তু শুরু থেকেই এ সব বিষয়ে হামিন কোনো হিসাব শাফিনকে দেয়নি এবং প্রাপ্য সম্মানিও তাকে দেয়া হচ্ছে না। শাফিনের অভিযোগ, হামিনরা মিথ্যার আশ্রয় নিয়ে ভক্তদের বিভ্রান্ত করার চেষ্টা করছেন। তাদের সমঝোতার কোনো ইচ্ছে নেই বলেও জানান শাফিন আহমেদ।

Share

আরও খবর