২০ মার্চ, নিজস্ব প্রতিনিধিঃ কুমিল্লা ভিক্টোরিয়া কলেজের শিক্ষার্থী সোহাগী জাহান তনুর ধর্ষণ ও হত্যাকাণ্ডের এক বছর পার হয়ে গেলেও বিচার হয়নি।

সোমবার জাতীয় প্রেসক্লাবের সামনে সোহাগী জাহান তনুর হত্যাকাণ্ডের বিচারের দাবিতে ‘সমাজতান্ত্রিক মহিলা ফোরাম’ আয়োজিত এক মানববন্ধনে এ কথা স্মরণ করিয়ে দেন বক্তারা। তারা এ সময় হত্যাকাণ্ডের বিচার চান।

সমাজতান্ত্রিক মহিলা ফোরামের কেন্দ্রীয় উপদেষ্টামণ্ডলীর সদস্য সামসুন্নাহার জ্যোৎস্না বলেন, ‘ভিক্টোরিয়া কলেজের ছাত্রী সোহাগী জাহান তনু গত বছরের ২০ মার্চ কুমিল্লা ক্যান্টনমেন্টের ভেতরে ধর্ষণ ও হত্যাকাণ্ডের শিকার হয়েছিল। এক বছর পার হলেও এ হত্যাকাণ্ডের কোনো বিচার হয়নি, তদন্ত এগোয়নি। এমনকি দুই বার ময়নাতদন্তের যে রিপোর্ট জনগণকে জানানো হয়েছে, তাতে তনু নিহত হওয়ার নির্দেশনা নেই।’

সমাজতান্ত্রিক মহিলা ফোরামের সাধারণ সম্পাদক প্রকৌশলী শম্পা বসু বলেন, ‘নিরাপত্তাবেষ্টিত সংরক্ষিত এলাকা যেখানে সাধারণ মানুষের প্রবেশাধিকার নজরদারিতে থাকে, সেই ক্যান্টনমেন্ট এলাকায় তনুর লাশ পাওয়া গিয়েছিল। এক বছর পার হলেও খুনি গ্রেপ্তারতো দূরের কথা তদন্ত পুলিশ থেকে ডিবি, ডিবি থেকে সিআইডিতে ট্রান্সফার করা হলো। কবর থেকে লাশ তুলে দ্বিতীয় দফা ময়নাতদন্ত হলো। এত কিছুর পরও আজও তনু হত্যার নির্দিষ্ট কোনো সুরাহা হয়নি।’

ময়নাতদন্তের প্রতিবেদন সম্পর্কে তিনি বলেন, ‘শরীরে বড় কোনো আঘাত নেই, ধর্ষণের আলামত নেই, বিষক্রিয়ায় তাকে খুন করা হয়নি। তাহলে খুন হলো কীভাবে? মরল কীভাবে?’

সমাজতান্ত্রিক মহিলা ফোরামের সদস্য মুক্তা বাড়ৈর পরিচালনায় মানববন্ধনে আরো বক্তব্য রাখেন সংগঠনটির নারায়ণগঞ্জ জেলা শাখার সংগঠক জেসমিন আক্তার, ইডেন মহিলা কলেজ শাখার সভাপতি নবীনা আক্তার, জগন্নাথ বিশ্ববিদ্যালয় শাখার সংগঠক মেহেরুন তাজরীন।

Share

আরও খবর