১২ জানুয়ারি, বিনোদন ডেস্কঃ সময়টা ৯০ পরবর্তী। বিশ্বের সবচাইতে আলোচিত এবং সমাদৃত ব্যান্ডগুলোর একটি “লিংকিংপার্ক”। ব্যান্ডটি শ্রোতামনে এমনভাবে জায়গা করে নেয় যা এখনো বিস্ময়ের জন্ম দেয়। এই “লিংকিংপার্ক”-এর প্রথম এলবাম ‘হাইব্রিডথিওরি’, সবচাইতে ব্যবসাসফল এলবামগুলোর একটি। এই এলবামের জনসমাদৃত গান ‘ইন দি এন্ড’। গানটি বিশ্বে ব্যাপক আলোড়ন সৃষ্টি করেছিল সেই সময়ে এবং আজও একইভাবে অনেকশ্রোতার প্লে-লিস্টে সবচাইতে বেশি সংখ্যকবার শোনা গানগুলোর মধ্যে একটি।

ব্যান্ডটির আলোচনায় উঠে আসার মূলকারণ ছিল তাদের গানের ধরণ এবং নিজস্ব স্টাইল। মূলতরক-মেটাল এর সাথে র‍্যাপ অন্তর্ভূক্ত করে তারা নতুন একটি ধারার সূচনা করে। পরবর্তীতে তাদের দেখাদেখি অন্যান্য অনেকব্যান্ডই এ ধরনের গান করা শুরু করে।

১৯৯৬ সালে ব্যান্ডটি যাত্রা শুরু করলেও মূলত আলোচনায় উঠে আসে ১৯৯৮ সালে ব্যান্ডে লিড ভোকাল হিসেবে ‘চেস্টারবেনিংটন’ এর আগমনে। চেস্টার ও মাইকশিনোডা (র‍্যাপার ও ভোকালিস্ট) এর ভোকালের সংমিশ্রণে নতুন ধারায় ঢুকে পরে ‘লিংকিংপার্ক’।

২০১৭ সালের ২০ জুলাই আকস্মিকভাবেই আত্মহত্যা করে ব্যান্ডের ভোকালিস্ট চেস্টার। এই ঘটনায় ভক্ত ও অনুরাগীদের মাঝে ব্যাপক প্রভাব পড়ে। এরপর পরই ব্যান্ডটি তাদের কার্যক্রম কিছুদিনের জন্য স্থগিত করে।

“লিংকিংপার্ক” এর গানসমূহ এতই জনসমাদৃত হয় যে তাদের গানগুলো কমবেশী সব ধারার ব্যান্ডসমূহ, ভক্ত ও অনুরাগীরা গাইবার চেস্টা করেছে অর্থাৎ কাভার করেছে। ঠিকতেমনি ‘ইন দি এন্ড’ গানটিকেও বিভিন্নভাবে কাভার করা হয়েছে। কিন্তু এইবারই প্রথম ‘ইন দি এন্ড’ গানটিকে পুরোপুরি মেটাল কাভার করেছে বাংলাদেশের জনপ্রিয় ও উঠতি ব্যান্ডগুলোর মধ্যে অন্যতম “ই এফ – এন্ডিংফেইস”। এই ব্যান্ডটি বরাবরের মতই এবারও তাদের গানে চমকে দিয়েছে এই সময়কার মেটাল শ্রোতাদের।

“ই এফ” মূলত হেভিমেটাল ব্যান্ড। ২০১১ সালের মে মাসে যাত্রা শুরু করে ব্যান্ডটি। ইতোমধ্যে তাদের বেশ কয়েকটি সিঙ্গেল ট্র্যাক ও একটি পূর্ণাঙ্গ এলবাম বাজারে এসেছে। ২০১৬ সালের ২২ জানুয়ারী ব্যান্ডটি তাদের প্রথম এলবাম “মুখোশ” প্রকাশ করে। এরপর থেকেই ব্যান্ডটি শ্রোতাদের মাঝে ব্যাপক সাড়া ফেলে দেয়।

ব্যান্ডটি এই গান কাভার করার মধ্য দিয়ে ভক্তদের জন্য একটি বড় চমক নিয়ে আসে। আর সেটি হলো ব্যান্ডটির গিটারিস্ট ‘নাহিয়ান’ এবারই প্রথম কোন গানে ভোকাল দেন। উল্লেখ্য এই গানটির র‍্যাপ অংশটুকুতারই গাওয়া।

এ প্রসঙ্গে নাহিয়ান বলেন, ‘আমি এই প্রথম কোন গানে নিজের ভোকাল দিলাম। জীবনের রোমাঞ্চকর ঘটনাগুলোর একটি ছিল এটি।’

লিডভোকালিস্ট ‘অংকুর রহমান’ বলেন, ‘যখন ও (নাহিয়ান) ভোকাল টেক দিচ্ছিল আমি অবাক হয়ে তাকিয়েছিলাম। আমার প্রথম রেকর্ডিং এ আমি যতটা নার্ভাস ছিলাম ও ঠিক ততটাই কনফিডেন্ট ছিল। সত্যিই অবাক করার মতো।’

ব্যান্ডটির কর্ণধার ও লিড গিটারিস্ট ‘তন্ময় রহমান’ জানান, ‘আমরা সব সময়ই চেস্টা করি আমাদের শ্রোতা-ভক্তদের এমন কিছু উপহার দিতে যাতে তারা আগামীতে ও আমাদের মনে রাখে। মিউজিক শুধু করার জন্য না করে নিজের উপলব্ধি মানুষের কাছে পৌছানোতেই একজন মিউজিসিয়ান সফল হতে পারে। আর আমরা সেই চেস্টাই করছি।’

ব্যান্ডটির অন্যতম কর্ণধার বেজগিটারিস্ট ‘সুমন (সুমভাই)’ বলেন, ‘গতানুগতিকতার বাইরে কিছু একটা করতে চেয়েছি এবং আমার বিশ্বাস আমরা তা করে দেখিয়েছি এবং ভবিষ্যতেও এই ধারা ধরে রাখতে চাই।’

উল্লেখ্য ব্যান্ডটি ২০১৮ সালেই তাদের দ্বিতীয় এলবাম বাজারে ছাড়তে চলেছে।

আর শ্রোতারা গানটি ইউটিউব থেকে দেখতে পাবেন নিচের লিংক থেকে…
https://www.youtube.com/watch?v=gehudsOuvoU

Share

আরও খবর